ইউরোপে ফের গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করছে রাশিয়া

6
রাশিয়া ফের বন্ধ রাখতে যাচ্ছে ইউরোপে গ্যাস সরবরাহ। দেশটির জ্বালানি সংস্থা গ্যাজপ্রোম জানিয়েছে, নড স্ট্রিম-১ পাইপ লাইনটি নিয়মিত রক্ষণাবেক্ষণ কাজের অংশ হিসেবে চলতি মাসের শেষের দিকে বন্ধ করা হবে। শুক্রবার অনলাইনে পোস্ট করা একটি বিবৃতিতে গ্যাজপ্রোম এ তথ্য জানিয়েছে। বিবিসির। প্রতিবেদনে বলা হয়, রাশিয়ার অনির্ধারিত রক্ষণাবেক্ষণের আদেশের ফলে ইউরোপে এরই মধ্যে তীব্র গ্যাস সংকট দেখা দিয়েছে। আকাশচুম্বী হয়েছে মূল্যস্ফীতি। এমন পরিস্থিতিতে অঞ্চলটিতে অর্থনৈতিক মন্দার ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। বাল্টিক সাগরের তলদেশ স্থাপনা করা নর্ড স্ট্রিম পাইপ লাইনের মাধ্যমে রাশিয়া থেকে জার্মানিতে গ্যাস যায়। সেখান থেকে পুরো ইউরোপে সরবরাহ করা হয়। গ্যাজপ্রোম জানিয়েছে, পাইপলাইন বরাবর একটি মূল কম্প্রেসার স্টেশনে একমাত্র সচল টারবাইনের রক্ষণাবেক্ষণের জন্য লাইনটি ৩১ আগস্ট থেকে ২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। বর্তমানে পাইপলাইনটি দিয়ে সক্ষমতার এক-পঞ্চমাংশ গ্যাস সরবরাহ করছে রাশিয়া। এর আগেও নিয়মিত কাজের জন্য এটির কার্যক্রম বন্ধ রাখে পুতিন প্রশাসন। রাশিয়া শুরু থেকেই পাইপলাইনটির মাধ্যমে কম গ্যাস সরবরাহের জন্য প্রযুক্তিগত সমস্যার কথা জানিয়ে আসছে। তবে জার্মানি বলছে ইউক্রেনের সংঘাতকে কেন্দ্র করে রাশিয়া অনিশ্চয়তা তৈরি করতে চায়।

নিউজ ডেস্ক: রাশিয়া ফের বন্ধ রাখতে যাচ্ছে ইউরোপে গ্যাস সরবরাহ। দেশটির জ্বালানি সংস্থা গ্যাজপ্রোম জানিয়েছে, নড স্ট্রিম-১ পাইপ লাইনটি নিয়মিত রক্ষণাবেক্ষণ কাজের অংশ হিসেবে চলতি মাসের শেষের দিকে বন্ধ করা হবে।

শুক্রবার অনলাইনে পোস্ট করা একটি বিবৃতিতে গ্যাজপ্রোম এ তথ্য জানিয়েছে। বিবিসির।

প্রতিবেদনে বলা হয়, রাশিয়ার অনির্ধারিত রক্ষণাবেক্ষণের আদেশের ফলে ইউরোপে এরই মধ্যে তীব্র গ্যাস সংকট দেখা দিয়েছে। আকাশচুম্বী হয়েছে মূল্যস্ফীতি। এমন পরিস্থিতিতে অঞ্চলটিতে অর্থনৈতিক মন্দার ঝুঁকি তৈরি হয়েছে। বাল্টিক সাগরের তলদেশ স্থাপনা করা নর্ড স্ট্রিম পাইপ লাইনের মাধ্যমে রাশিয়া থেকে জার্মানিতে গ্যাস যায়। সেখান থেকে পুরো ইউরোপে সরবরাহ করা হয়।

গ্যাজপ্রোম জানিয়েছে, পাইপলাইন বরাবর একটি মূল কম্প্রেসার স্টেশনে একমাত্র সচল টারবাইনের রক্ষণাবেক্ষণের জন্য লাইনটি ৩১ আগস্ট থেকে ২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ থাকবে।

বর্তমানে পাইপলাইনটি দিয়ে সক্ষমতার এক-পঞ্চমাংশ গ্যাস সরবরাহ করছে রাশিয়া। এর আগেও নিয়মিত কাজের জন্য এটির কার্যক্রম বন্ধ রাখে পুতিন প্রশাসন।

রাশিয়া শুরু থেকেই পাইপলাইনটির মাধ্যমে কম গ্যাস সরবরাহের জন্য প্রযুক্তিগত সমস্যার কথা জানিয়ে আসছে। তবে জার্মানি বলছে ইউক্রেনের সংঘাতকে কেন্দ্র করে রাশিয়া অনিশ্চয়তা তৈরি করতে চায়।

সূত্র: যুগান্তর