আইটিইউ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী যুক্তরাষ্ট্র-রাশিয়া, কার পক্ষে বাংলাদেশ?

5
আন্তর্জাতিক টেলিকমিউনিকেশন ইউনিয়নের (আইটিইউ) নির্বাচনে নিজেদের প্রার্থীর পক্ষে ভোট চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্র; যেখানে তাদের প্রতিদ্বন্দ্বী রাশিয়া। এই অবস্থায় কাকে ভোট দেবে বাংলাদেশ? এমন এক পরিস্থিতিতে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন বলেন, এখনও সময় আছে। আমরা এখনও সিদ্ধান্ত নিই নাই, আমরা দেখি যে কে ভালো করছে, কার জেতার সম্ভাবনা আছে। সোমবার ঢাকা সফররত যুক্তরাষ্ট্রের আন্তর্জাতিক সংস্থা বিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মিশেল সিসনের সঙ্গে বৈঠকের পর এ নিয়ে কথা বলেন তিনি। তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি নিয়ে কাজ করা জাতিসংঘের বিশেষায়িত সংস্থা আইটিইউর শীর্ষ পর্যায়ের প্লেনিপটেনশিয়ারি কনফারেন্স ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে ১৪ অক্টোবর রোমানিয়ার রাজধানী বুখারেস্টে অনুষ্ঠিত হবে। চার বছর পরপর আসা এমন সম্মেলনে পরবর্তী সময়ের জন্য নীতি ও কৌশল প্রণয়ন এবং আর্থিক পরিকল্পনা গ্রহণের পাশাপাশি জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের ব্যবস্থাপকদের নির্বাচন করা হয়। শীর্ষ ব্যবস্থাপকদের তালিকায় প্রথমে থাকা মহাসচিব পদে এবার নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ডরিন বগড্যান-মার্টিন ও রাশিয়ার রাশিদ ইসমাইলভ। নির্বাচনে ব্যাপক প্রচার চলার মধ্যে ২ থেকে ১০ অগাস্ট ভারত, বাংলাদেশ ও কুয়েত সফর করছেন মার্কিন সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মিশেল সিসন। অন্যান্য বিষয়ের সঙ্গে আইটিইউ নির্বাচনে ডরিনের পক্ষে সমর্থন চাওয়ার বিষয়টিও তার সফরের আলোচ্যসূচিতে থাকবে বলে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দপ্তর আগেই জানিয়েছিল। তিন দিনের সফরে শনিবার বিকালে ঢাকায় আসেন সিসন। ঢাকা থেকে উপসাগরীয় দেশ কুয়েতে যাওয়ার কথা রয়েছে তার।

নিউজ ডেস্ক: আন্তর্জাতিক টেলিকমিউনিকেশন ইউনিয়নের (আইটিইউ) নির্বাচনে নিজেদের প্রার্থীর পক্ষে ভোট চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্র; যেখানে তাদের প্রতিদ্বন্দ্বী রাশিয়া। এই অবস্থায় কাকে ভোট দেবে বাংলাদেশ?

এমন এক পরিস্থিতিতে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন বলেন, এখনও সময় আছে। আমরা এখনও সিদ্ধান্ত নিই নাই, আমরা দেখি যে কে ভালো করছে, কার জেতার সম্ভাবনা আছে।

সোমবার ঢাকা সফররত যুক্তরাষ্ট্রের আন্তর্জাতিক সংস্থা বিষয়ক সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মিশেল সিসনের সঙ্গে বৈঠকের পর এ নিয়ে কথা বলেন তিনি।

তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি নিয়ে কাজ করা জাতিসংঘের বিশেষায়িত সংস্থা আইটিইউর শীর্ষ পর্যায়ের প্লেনিপটেনশিয়ারি কনফারেন্স ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে ১৪ অক্টোবর রোমানিয়ার রাজধানী বুখারেস্টে অনুষ্ঠিত হবে।

চার বছর পরপর আসা এমন সম্মেলনে পরবর্তী সময়ের জন্য নীতি ও কৌশল প্রণয়ন এবং আর্থিক পরিকল্পনা গ্রহণের পাশাপাশি জ্যেষ্ঠ পর্যায়ের ব্যবস্থাপকদের নির্বাচন করা হয়।

শীর্ষ ব্যবস্থাপকদের তালিকায় প্রথমে থাকা মহাসচিব পদে এবার নির্বাচনে প্রার্থী হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ডরিন বগড্যান-মার্টিন ও রাশিয়ার রাশিদ ইসমাইলভ।

নির্বাচনে ব্যাপক প্রচার চলার মধ্যে ২ থেকে ১০ অগাস্ট ভারত, বাংলাদেশ ও কুয়েত সফর করছেন মার্কিন সহকারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মিশেল সিসন।

অন্যান্য বিষয়ের সঙ্গে আইটিইউ নির্বাচনে ডরিনের পক্ষে সমর্থন চাওয়ার বিষয়টিও তার সফরের আলোচ্যসূচিতে থাকবে বলে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দপ্তর আগেই জানিয়েছিল।

তিন দিনের সফরে শনিবার বিকালে ঢাকায় আসেন সিসন। ঢাকা থেকে উপসাগরীয় দেশ কুয়েতে যাওয়ার কথা রয়েছে তার।

সূত্র: যুগান্তর