অবশেষে সেই শিশুপার্ক সংস্কারের উদ্যোগ

6
অবশেষে নওগাঁর রানীনগর উপজেলা পরিষদ চত্বরের অবহেলিত সরকারি সেই শিশুপার্কটি সংস্কার করার উদ্যোগ নিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহাদাত হুসেইন। বৃহস্পতিবার শিশুপার্কটির ভেতরে ও বাইরে ময়লার ভাগাড় পরিষ্কার করা হয়। গত ২৪ জুলাই যুগান্তরে ‘রানীনগরের সরকারি শিশুপার্ক ময়লার ভাগাড়, বিনোদন থেকে বঞ্চিত শিশুরা’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশ করা হয়। এর পর তা নজরে আসে কর্তৃপক্ষের। এর মধ্যে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহাদাত হুসেইন অবহেলিত সেই শিশুপার্কটি সংস্কারের ও নতুন করে সাজিয়ে শিশুপার্কটিকে নতুন রূপে ফিরিয়ে আনার উদ্যোগ গ্রহণ করেন। রানীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহাদাত হুসেইন বলেন, এ উপজেলায় যোগদানের পর শুনেছি দীর্ঘদিন থেকেই শিশুপার্কটি অবহেলিত। এর পর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবং ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করে পরিষদের ফান্ড থেকে বরাদ্দ দিয়ে শিশুপার্কটি সংস্কার করার উদ্যোগ গ্রহণ করি। বৃহস্পতিবার শিশুপার্কটির ভেতরে ও বাইরে সব ময়লা-আবর্জনা পরিষ্কার করা হয়। আর সংস্কারের কাজ শুরু হয়েছে। আসা করছি সংস্কার শেষে কয়েক দিনের মধ্যেই শিশুপার্কটি বিভিন্ন ধরনের সাজসজ্জার মাধ্যমে নতুন রূপে ফিরিয়ে এনে শিশুদের বিনোদনের জন্য উপযোগী করে তোলা হবে।

নিউজ ডেস্ক: অবশেষে নওগাঁর রানীনগর উপজেলা পরিষদ চত্বরের অবহেলিত সরকারি সেই শিশুপার্কটি সংস্কার করার উদ্যোগ নিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহাদাত হুসেইন। বৃহস্পতিবার শিশুপার্কটির ভেতরে ও বাইরে ময়লার ভাগাড় পরিষ্কার করা হয়।

গত ২৪ জুলাই যুগান্তরে ‘রানীনগরের সরকারি শিশুপার্ক ময়লার ভাগাড়, বিনোদন থেকে বঞ্চিত শিশুরা’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশ করা হয়। এর পর তা নজরে আসে কর্তৃপক্ষের। এর মধ্যে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শাহাদাত হুসেইন অবহেলিত সেই শিশুপার্কটি সংস্কারের ও নতুন করে সাজিয়ে শিশুপার্কটিকে নতুন রূপে ফিরিয়ে আনার উদ্যোগ গ্রহণ করেন।

রানীনগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহাদাত হুসেইন বলেন, এ উপজেলায় যোগদানের পর শুনেছি দীর্ঘদিন থেকেই শিশুপার্কটি অবহেলিত। এর পর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবং ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করে পরিষদের ফান্ড থেকে বরাদ্দ দিয়ে শিশুপার্কটি সংস্কার করার উদ্যোগ গ্রহণ করি। বৃহস্পতিবার শিশুপার্কটির ভেতরে ও বাইরে সব ময়লা-আবর্জনা পরিষ্কার করা হয়। আর সংস্কারের কাজ শুরু হয়েছে। আসা করছি সংস্কার শেষে কয়েক দিনের মধ্যেই শিশুপার্কটি বিভিন্ন ধরনের সাজসজ্জার মাধ্যমে নতুন রূপে ফিরিয়ে এনে শিশুদের বিনোদনের জন্য উপযোগী করে তোলা হবে।

সূত্র: যুগান্তর