কিয়েভে ৬টি শক্তিশালী ক্ষেপণাস্ত্র ছুঁড়েছে রাশিয়া

6
কৃষ্ণ সাগর থেকে ইউক্রেনের কিয়েভ অঞ্চলে ছয়টি শক্তিশালী ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে রুশ বাহিনী। রাজধানীর উপকণ্ঠে লিউটিজ গ্রামে একটি সামরিক ইউনিটে আঘাত হেনেছে। গত কয়েক সপ্তাহের মধ্যে প্রথমবার চেরনেহিভ অঞ্চলেও হামলা চালিয়েছে রুশ বাহিনী। বৃহস্পতিবার ইউক্রেনের জেনারেল স্টাফের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা ওলেক্সি হরমোভ এই তথ্য জানিয়েছে। খবর আলজাজিরার। তিনি জানান, খেরসনে রাশিয়ার বিরুদ্ধে পাল্টা আক্রমণ চালানোর প্রতিশোধ নিতেই এসব ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে দেশটি। ওলেক্সি হরমোভ বলেন, হামলায় একটি ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বুচা শহরে একটি ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিহত করেছে ইউক্রেনীয় বাহিনী। কিয়েভের আঞ্চলিক গভর্নর ওলেক্সি কুলেবা বলেন, এসব জায়গায় রুশ হামলায় ১৫ জন আহত হয়েছেন, যাদের মধ্যে পাঁচ বেসামরিক নাগরিক। তিনি আরও বলেন, ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ে প্রতিশোধ নিচ্ছে মস্কো, তবে ইউক্রেন ইতোমধ্যে রাশিয়ার পরিকল্পনা নস্যাৎ করে দিয়েছে, একইভাবে নিজেদের রক্ষা করে যাবে। কয়েক মাস আগে অবশ্য কিয়েভ, চেরনিহিভ অঞ্চল থেকে নিজেদের বাহিনী সরিয়ে নেয় রাশিয়া। সেই সময় অঞ্চলগুলোয় ইউক্রেনীয় বাহিনীর তীব্র প্রতিরোধের মুখে বাধ্য হয়ে পিছু হটে তারা। খেরসন অঞ্চল পুনরুদ্ধারে সম্প্রতি আবারও ইউক্রেনীয় যোদ্ধারা যখন পাল্টা হামলা শুরু করেছে, তখন ইউক্রেনের বিভিন্ন শহর ও অঞ্চলে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা জোরদার করেছে রুশ বাহিনী। কৌশলগতভাবে গুরুত্বপূর্ণ খেরসন যে কোনো মূল্যে পুনরুদ্ধার করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি। গত কয়েক দিন ধরে সেখানে ভারি কামান, বিপুল সেনাসদস্য দেখা যাচ্ছে।

নিউজ ডেস্ক: কৃষ্ণ সাগর থেকে ইউক্রেনের কিয়েভ অঞ্চলে ছয়টি শক্তিশালী ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে রুশ বাহিনী। রাজধানীর উপকণ্ঠে লিউটিজ গ্রামে একটি সামরিক ইউনিটে আঘাত হেনেছে। গত কয়েক সপ্তাহের মধ্যে প্রথমবার চেরনেহিভ অঞ্চলেও হামলা চালিয়েছে রুশ বাহিনী।

বৃহস্পতিবার ইউক্রেনের জেনারেল স্টাফের জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা ওলেক্সি হরমোভ এই তথ্য জানিয়েছে। খবর আলজাজিরার।

তিনি জানান, খেরসনে রাশিয়ার বিরুদ্ধে পাল্টা আক্রমণ চালানোর প্রতিশোধ নিতেই এসব ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছে দেশটি।

ওলেক্সি হরমোভ বলেন, হামলায় একটি ভবন ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বুচা শহরে একটি ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিহত করেছে ইউক্রেনীয় বাহিনী। কিয়েভের আঞ্চলিক গভর্নর ওলেক্সি কুলেবা বলেন, এসব জায়গায় রুশ হামলায় ১৫ জন আহত হয়েছেন, যাদের মধ্যে পাঁচ বেসামরিক নাগরিক।

তিনি আরও বলেন, ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়ে প্রতিশোধ নিচ্ছে মস্কো, তবে ইউক্রেন ইতোমধ্যে রাশিয়ার পরিকল্পনা নস্যাৎ করে দিয়েছে, একইভাবে নিজেদের রক্ষা করে যাবে।

কয়েক মাস আগে অবশ্য কিয়েভ, চেরনিহিভ অঞ্চল থেকে নিজেদের বাহিনী সরিয়ে নেয় রাশিয়া। সেই সময় অঞ্চলগুলোয় ইউক্রেনীয় বাহিনীর তীব্র প্রতিরোধের মুখে বাধ্য হয়ে পিছু হটে তারা।

খেরসন অঞ্চল পুনরুদ্ধারে সম্প্রতি আবারও ইউক্রেনীয় যোদ্ধারা যখন পাল্টা হামলা শুরু করেছে, তখন  ইউক্রেনের বিভিন্ন শহর ও অঞ্চলে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা জোরদার করেছে রুশ বাহিনী। কৌশলগতভাবে গুরুত্বপূর্ণ খেরসন যে কোনো মূল্যে পুনরুদ্ধার করা হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি। গত কয়েক দিন ধরে সেখানে ভারি কামান, বিপুল সেনাসদস্য দেখা যাচ্ছে।

সূত্র: যুগান্তর