প্রায় ৪ কোটি করোনা রোগী শনাক্ত

0
6

নিউজ ডেস্ক: কোভিড-১৯ মহামারী কিছুতেই নিয়ন্ত্রণে আসছে না বিশ্বে। একপ্রান্তে প্রাদুর্ভাব কিছুটা কমলেও অন্যপ্রান্তে বাড়ছে। রোজ দীর্ঘ হচ্ছে লাশের সারি। আক্রান্ত রোগীর সংখ্যাও বেড়েই চলেছে। ইতিমধ্যে প্রায় ৪ কোটি মানুষ বৈশ্বিক মহামারীতে সংক্রমিত হয়েছেন।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারসের তথ্যানুযায়ী, রোববার সকাল ১০টা পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩ কোটি ৯৯ লাখ ৫৯ হাজার ২৬৯ জন। আর মারা গেছেন ১১ লাখ ১৪ হাজার ৬৩৩ জন।  আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২ কোটি ৯৮ লাখ ৮৮ হাজার ৫৮৪ জন।

তবে করোনায় মৃত্যুর হিসাব রাখা যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিনস বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্যানুযায়ী, মৃত্যু ও আক্রান্তের সংখ্যা কিছুটা কম।  আজ রোববার সকাল নাগাদ করোনায় সংক্রমিত শনাক্ত রোগী ৩ কোটি ৯৫ লাখ ৮৮ হাজার ২৯৩ জন। মারা গেছেন ১১ লাখ ৮ হাজার ৫৭৬ জন। আর করোনা থেকে সেরে ওঠা মানুষের সংখ্যা ২ কোটি ৭০ লাখ ৮৯ হাজার ৯১২ জন।

আক্রান্ত ও মৃতের তালিকায় শীর্ষে থাকা যুক্তরাষ্ট্রে ৮৩ লাখ ৪২ হাজার ৬৫৬ মানুষ করোনা পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন।  মারা গেছেন ২ লাখ ২৪ হাজার ২৮২ জন।  সুস্থ হয়েছেন ৫৪ লাখ ৩২ হাজার ১৯২ জন।

করোনা আক্রান্তে দ্বিতীয় ও মৃত্যুতে তৃতীয় ভারতে ১ লাখ ১৪ হাজার ৬৪ জনের প্রাণ গেছে নতুন এই রোগটিতে। পৃথিবীর অন্যতম ঘনবসতির এ দেশে মোট ৭৪ লাখ ৯২ হাজার ৭২৭ জন পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন। সুস্থ হয়েছেন ৬৫ লাখ ৯৪ হাজার ৩৯৯ জন।

আর করোনায় মৃত্যুতে দ্বিতীয় ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত ১ লাখ ৫৩ হাজার ৬৯০ জনের প্রাণ গেছে মহামারীতে। লাতিন আমেরিকার সবচেয়ে বড় দেশটিতে মোট ৫২ লাখ ২৪ হাজার ৩৬২ জন পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন। সুস্থ হয়েছেন ৪৬ লাখ ৩৫ হাজার ৩১৫ জন।

গত বছরের ডিসেম্বরে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে চীনের উহানে। এর পর থেকে বিশ্বের ২১৩ দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে এই ভাইরাস। করোনার প্রাদুর্ভাবের পরিপ্রেক্ষিতে ৩০ জানুয়ারি বৈশ্বিক স্বাস্থ্য জরুরি অবস্থা ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

২ ফেব্রুয়ারি চীনের বাইরে করোনায় প্রথম কোনো রোগীর মৃত্যুর ঘটনা ঘটে ফিলিপাইনে।

১১ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনাভাইরাস থেকে সৃষ্ট রোগের নামকরণ করে ‘কোভিড-১৯ ’।

১১ মার্চ করোনাকে বৈশ্বিক মহামারী ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here