সবার ভালোবাসাই আমার শক্তি ও সাহস: শিখা খান

0
31

বিনোদন প্রতিবেদক: গতকাল যে অপরিচিত ছিল, নামটাও জানা ছিল না। আজ তার সাথে দুদন্ড কথা বলাতেই হয়ে গেল পরিচিত। কথার পরে কথার ধাপ পেড়িয়ে কখোন যে আন্তরিকতায় পৌছে গেছি সেটা বেমালুম ভুলেই বসে আছি। এটাই সম্পর্কের সূত্রপাত। মানুষে মানুষে সখ্যতা গড়ে তুলতে সময়ের প্রয়োজন। সেই সময়কেই কাজে লাগিয়ে ভাল ব্যবহার আর কাজের দক্ষতাকে পুজি করে এসময়ের নানা ব্যস্ততার মাঝেও নিজেকে রেখেছেন মিডিয়ায় কাজের উপযোগী করে। সবার চোখের আড়ালে নয় সামনে থেকেই নিজের যোগ্যতার প্রমান দেয়া এই তরুন প্রতিভাবান মডেল অভিনেত্রীর কিছু সময়ের আলাপচারিতা আজ পাঠকদের জন্য।

মিষ্টি নামের মেয়ে শিখা খান।যার জন্ম মানিকগঞ্জের হরিরামপুর উপজেলার গোপীনাথপুরের ঝিটকায় । ২০১৪ সালে গোপীনাথপুরের ঝিটকা আনন্দ মোহন হাই স্কুল থেকে কমার্স নিয়ে এসএসসিতে উত্তীর্ণ হন তিনি।

অভিনয়ের প্রতি ভালবাসা আর শ্রোদ্ধাবোধ থেকেই ১৩ টি ইউনিয়নে পরিবেষ্টিত হরিরামপুর উপজেলারগোপীনাথপুরের ঝিটকা থেকে উচ্চতর শিক্ষার জন্য চলে আসেন ঢাকায়। শুরু করেন নিজেকে প্রস্তুত করার যুদ্ধ।

নানান চড়াই উৎরায় পেড়িয়ে বাংলা মিডিয়া জগতের সিগ্ধ সান্নিধ্যে পা দিতে না দিতেই নজরে আসেন বিজ্ঞাপন নির্মাতা জামান রায়হানের। তারই প্রচেষ্টায় ২০১৫ সালে আকবরিয়া লাচ্ছা সেমায়ের বিজ্ঞাপনে প্রথম মডেল হিসেবে আত্নপ্রকাশ করেন শিখা খান।

ক্যারিয়ারের উপরে ওঠার সিড়ির সন্ধান পাওয়া শিখা খানকে আর পেছণে ফিরে তাকাতে হয়নি। রাকিবুল ইসলাম রাজনের পরিচালনায় ভ্যাটের উপর সরকারি বিজ্ঞাপন চিত্রেও রেখেছেন সফলতার ছাপ। এরপর একে একে ২০১৬, ২০১৭, ২০১৮, ২০১৯ করেছেন অনেক কাজ। রবি সিমের ক্রিকেটারদের নিয়ে বিজ্ঞাপনের মডেল, মিতালী থ্রি পিস, কানিজ ফ্যাশন বার্ডসহ আরও বেশ কিছু বিজ্ঞাপনের মডেল হয়েছিলেন।

২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর চীনের উহানে আর্বিভূত করোনা ভাইরাসের বাতাস আমাদের দেশে এসে প্রথম আঘাত করলো ১৮ই মার্চ। থেমে গেল শিখা খানে মিডিয়া ব্যস্ততা। ২৬ মার্চ থেকে শুরু হলো লকডাউন। থেমে গেল জনজীবন, বিপন্ন হলো মানবতা। লকডাউন শব্দটি আমাদের সবার জীবন থেকেই কেড়ে নিল অনেক সম্ভাবনা।

আলাপচারিতার এক পর্যায়ে শিখা খান বলেন, সরলতায় আর স্বচ্ছতায় আমি সবার সাথে মিশে থাকতে চাই। কাজের প্রতি শতভাগ আস্থা হোক আমার অনুপ্রেরনা। সবার ভালবাসা হোক আমার শক্তি ও সাহস।

শিখা খান প্রথম এফ এ সুমনের গানের মডেল হয়ে যাত্রা শুরু করেন। এরপর এক এক করে ২৫ টি গানের মডেল হয়েছেন। কাজ চলছে বেশ কয়েকটি গানের। ধ্রুব মিউজিক স্টেশন থেকে মোহনা ও হৃদয়ের গাওয়া গানের মডেল হয়েছন। এই গানে শিখা মডেল হিসেবে নিজেকে ভিন্নভাবে উপস্থাপন করেছেন।

মডেলিং এবং মিউজিক ভিডিও ছাড়াও শিখা খান অভিনয়েও অনেকটা এগিয়ে গেছেন। এ পর্যন্ত বেশ কয়েকটি একক নাটকে অভিনয় করেছেন। তারমধ্যে অপারেশন সার্চলাইট, বিসিএস ক্যাডার অন্যতম। স্যুটিং ও কথা চলছে কয়েকটি নাটকের নির্মাতার সঙ্গে।

সাখাওয়াত মিঠুর পরিচালনায় সজল সরকারের মিউজিক ভিডিও “মনের টান”। একজন ডাক পিয়ন ও গ্রামে বেড়ে উঠা সাধারণ এক বালিকাকে নিয়েই এই মিউজিক ভিডিও।শিখা খান আরা অভিনয় করেছেন সাখাওয়াত মিঠুর পরিচালনায় সাগর তালুকদারের মিউজিক্যাল ফিল্ম “নয়া বাড়ি”। পাহাড়ি কন্যার প্রেমের কাহিনী নিয়ে নির্মিত হয়েছে মিউজিক্যাল ফিল্ম ‘নয়া বাড়ি’।

ইতিমধ্যেই ভক্তদের হৃদয়েও জায়গা করে নিয়েছেন তিনি। টেলিভিশন নাটক ও মিউজিক ভিডিওর কাজ নিয়ে অন্য অনেকের মতোই বেশ ব্যস্ত সময় পার করছিলেন শিখা খান। কিন্তু বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে পুরোপুরি হোমকোয়ারেন্টাইনে বাসাতেই পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে সময় কাটানো ও লেখা পড়ায় মনোনিবেশ করা ছাড়া আর কিইবা করবেন ইডেনের অনার্স শেষ বর্ষের মেয়েটি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here